জেনে নিন কালো বিড়াল রাস্তা কাটলে দাঁড়িয়ে পড়ে কেন সবাই….

পৃথিবীর বিভিন্ন সংস্কৃতিতেই কালো বিড়ালকে অশুভ হিসেবে গণ্য করা হয়। বিশেষ করে কালো বিড়ালের রাস্তা পার হওয়াকে অশুভ লক্ষণ বলে মনে করা হয়। অনেকেই বিশ্বাস করেন, কোনও শুভ কাজে বের হবার সময় যদি কোন কালো বিড়ালকে সামনে রাস্তা পার হতে দেখা হয় তাহলে সেই কাজে সাফল্য না আসার অনেক সম্ভাবনা রয়েছে।

এমনটা ঘটলে বাড়ি ফিরে গিয়ে নতুন করে যাত্রা শুরু করা করা, তা না হলে কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে তারপর আবার কাজের উদ্দেশ্যে রওনা দেয়াকে ভাল বলে মনে করা হয়। গাড়ি চালকদের মধ্যে অনেকেই এই উপদেশ মেনেও চলেন। কিন্তু এই বিশ্বাসের সবটাই কি নিছক কুসংস্কার, নাকি এর বাস্তব ভিত্তি রয়েছে এ বিষয়টা এখনও পরিষ্কার নয়।

গল্পে অতীতের দিনে যখন গরুতে গাড়ি টানা হতো কালো বিড়াল রাস্তা পার করলে গরুদের মধ্যে অস্থিরতা লক্ষ করা যেত!তখন গাড়ির গাড়োয়ান গরুদের শান্ত করতে কিছুক্ষণের জন্য গাড়ি থামিয়ে দিতেন!এই রেওয়াজই কুসংস্কারে পরিণত হয়!সেই প্রচলন এখনও রয়েছে,বিড়াল চলে গেলে গাড়ি থামিয়ে দেওয়া হয়!শুভ কাজে যাত্রা করার সময় যাত্রাপথে কালো বিড়ালের দেখা পেলে তা এক অশুভ ইঙ্গিত!অনেকে গন্তব্যস্থলে না গিয়ে বাড়ি ফিরে যান,অনেকে অপেক্ষা করে আবার যাত্রা শুরু করেন কারণ নাকি দোষ কাটে! কালো বিড়ালকে অতিলৌকিক জগতের প্রতিনিধি,রাস্তা কাটা এবং গাড়ি থামিয়ে দেওয়ার মধ্যে যুক্তি রয়েছে সামাজিক!

­
রাস্তায় গাড়ি চালিয়ে যাওয়ার, হেঁটে যাওয়ার সময় কোনও বিড়াল রাস্তা পার হলে গাড়ি, মানুষ দাঁড়িয়ে পড়ে!সাধারণত বিড়াল জাতীয় প্রাণীদের অন্য বড় আকৃতির পশুরা তাড়া করে,সেক্ষেত্রে বিড়ালকে দেখার পর একটু দাঁড়িয়ে গেলেই ভালো হয় এটাই যুক্তিবাদীদের বক্তব্য!

আমাদের এই তথ্য টি ভালো লাগলে লাইক ও শেয়ার করবেন।

Sanjib: